Category Archives:

হীরে লালমতির দোকানে গেলে না

হীরে লালমতির দোকানে গেলে না।
সদাই কিনলি রে মন পিতলদানা।।

চটকে ভুলে রে মন
হারালি অমূল্য রতন
হেরে বাজি কাঁদলে তখন
আর সারে না।।

পিছের কথা আগে ভেবে
উচিৎ বটে তাই জানিবে
গত কাজের বিধি কিরে
মন-রসনা।।

ব্যাপারে লাভ করলে ভাল
সে গুণপনা জানা গেল
লালন বলে মিছে হলো
আওনা-যাওনা।।

Posted from WordPress for Android

Advertisements

হা রে মন তোরে আর কী বলি

হা রে মন তোরে আর কী বলি।
পেয়ে ধন সে ধন হারালি।।

মহাজনের ধন এনে
ছড়ালি রে উলুবনে
ও তোর কী হবে নিকাশের দিনে
সে ভাবনা কই ভাবিলি।।

সই করিয়ে পুঁজি তখন
আনলি রে তিন রতি এক মন
তোর ব্যাপার করা যেমন তেমন
আসলে খাদ লাগালি।।

করলি ভাল বেচাকেনা
চিনলে নে রে রাঙ কি সোনা
অধীন লালন বলে মন-রসনা
কেন সাধুর হাটে এলি।।

Posted from WordPress for Android


হাতের কাছে মামলা থুয়ে কেন ঘুরে বেড়াও ভেয়ে

হাতের কাছে মামলা থুয়ে কেন ঘুরে বেড়াও ভেয়ে।
ঢাকা শহর দিল্লী-লাহোর খুঁজলে মেলে এই দেহে।।

মনের ধোঁকায় যেথায় যাবি
ধাক্কা খেয়ে হেথায় ফিরবি
এমনি ভাবে ঘুরে মরবি
সন্ধান না পেয়ে।।

গয়া-কাশী মক্কা-মদিনা
বাইরে খুঁজলে ধান্দা যায় না
দেহরতি খুঁজলে পাবি
সকল তীর্থের ফল তাহে।।

দেখ দেখি মন রে আমার
অবিশ্বাসের ধন প্রাপ্তি হয় কার
যার বিশ্বাসের মন, নিকটে পায় ধন
লালন ফকির যায় কয়ে।।

Posted from WordPress for Android


হায় চিরদিন পুষলাম এক অচিন পাখি

হায় চিরদিন পুষলাম এক অচিন পাখি।
ভেদ-পরিচয় দেয় না আমার ওই খেদে ঝুরে আঁখি।।

পাখি বুলি বলে শুনতে পাই
রূপ কেমন দেখি নে ভাই
বিষম ঘোর দেখি;
চিনাল্‍ পেলে চিনে নিতাম
যেত মনের ধুকধুকি।।

পোষা পাখি চিনলাম না
এ লজ্জা তো যাবে না
উপায় করি কী;
পাখি কখন যেন যাবে উড়ে
ধুলো দিয়ে দুই চোখি।।

আছে নয় দরজা খাঁচাতে
যায় আসে পাখি কোন পথে
চোখে দিয়ে রে ভেল্কি;
সিরাজ সাঁই কয় লালন বয়
ফাঁদ পেতে ওই সিঁদমুখী।।

Posted from WordPress for Android


হাহাকারে একা ছিল হুহুংকারে দোসর হ’ল

হাহাকারে একা ছিল হুহুংকারে দোসর হ’ল।
গুপ্তকথা বলতে আমায় কত নিষেধ করেছিল।।

হুহুংকার ছাড়িল যখন
খুলে গেল নূরের বসন
সেই সময় বরকতকে তখন
মা বোল বলে ডেকেছিল।।

খুলিলেন মা হাতের কঙ্কণী
কেন বসন মা গো খুলিলেন আপনি
হাসান হোসেন কানের বালি
নবি আলি পাঁচজন হ’ল।।

কুদরতে হয় নূর সিতারা
তাইতে মা তোর নাম জহুরা
হয়ে লালন দিশেহারা
জহুরা রূপ প্রকাশিল।।

Posted from WordPress for Android


হরি বলে হরি কাঁদে কেনে

হরি বলে হরি কাঁদে কেনে।
ধারা বহে দু’নয়নে।।

হরি বলে হরি গোরা
দু’নয়নে বহে ধারা
কী ছলে এসেছে গোরা
নদীয়া ভুবনে।।

আমরা যত পুরুষ নারী
দেখিতে আইলাম হরি
হরিকে হরিল হরি
সেই হরি কোনখানে।।

গৌরহরি দেখে এবার
কত পুরুষ নারী ছাড়িল ঘর
সেই হরি কী করে এবার
লালন তাই ভাবে মনে।।

Posted from WordPress for Android


হতে চাও হুজুরের দাসী

হতে চাও হুজুরের দাসী।
মনে গিল্লাদ পোরা রাশি রাশি।।

না জান প্রেম উপাসনা
না জান সেবা-সাধনা
সদাই দেখি ইতরপনা
প্রিয় রাজি হবে কিসি।।

কেশ বেঁধে বেশ করলে কী হয়
রসবোধ না যদি রয়
রসবতী কে তারে কয়
কেবল মুখে কাষ্ঠ হাসি।।

কৃষ্ণপদে গোপী সুজন
করে ছিল দাস্য সেবন
লালন বলে তাই কি রে মন
পারবি ছেড়ে সুখবিলাসী।।

Posted from WordPress for Android